নৌকা হচ্ছে বাংলাদেশের মানুষের উন্নয়নের প্রতীক - মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী শ.ম রেজাউল করিম - Nagorik Vabna
  1. info.nagorikvabna@gmail.com : Rifan Ahmed : Rifan Ahmed
  2. smborhan.elite@gmail.com : Borhan Uddin : Borhan Uddin
  3. holysiamsrabon@gmail.com : Holy Siam Srabon : Holy Siam Srabon
  4. mdmohaiminul77@gmail.com : Mohaiminul Islam : Mohaiminul Islam
  5. ranadbf@gmail.com : rana :
  6. rifanahmed83@gmail.com : Rifan Ahmed : Rifan Ahmed
  7. newsrobiraj@gmail.com : Robiul Islam : Robiul Islam
নৌকা হচ্ছে বাংলাদেশের মানুষের উন্নয়নের প্রতীক - মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী শ.ম রেজাউল করিম - Nagorik Vabna
বৃহস্পতিবার, ৩০ জুন ২০২২, ০৭:৩৯ পূর্বাহ্ন
ঘোষণা:
দেশব্যাপী প্রচার ও প্রসারের লক্ষে প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে। আগ্রহীরা সিভি পাঠান info.nagorikvabna@gmail.com অথবা হটলাইন 09602111973-এ ফোন করুন।

নৌকা হচ্ছে বাংলাদেশের মানুষের উন্নয়নের প্রতীক – মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী শ.ম রেজাউল করিম

  • সর্বশেষ পরিমার্জন : বৃহস্পতিবার, ৪ মার্চ, ২০২১
  • ৪৩৪ বার পড়া হয়েছে

হাসান মামুন,ষ্টাফ রিপোর্টার: মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী শ.ম রেজাউল করিম এমপি বলেছেন, বাংলাদেশকে এগিয়ে নিতে আওয়ামী লীগ সরকারের কোনও বিকল্প নাই। শেখ হাসিনা সরকার যতদিন থাকবে, দেশের মানুষ ততদিন সেবা পাবে। দেশের উন্নয়ন হবে। এ উন্নয়নের ধারাকে অব্যাহত রাখতে নৌকায় ভোট দিন। নৌকা হচ্ছে বাংলাদেশের মানুষের উন্নয়নের প্রতীক। মন্ত্রী বলেছেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা উন্নত, সমৃদ্ধ ও বিজ্ঞানমনস্ক দেশ গড়ে তুলছেন। তিনি কান্তি হীনভাবে দিন-রাত পরিশ্রম করে যাচ্ছেন। দেশ আজ উন্নয়নের অপ্রতিরোধ্য গতিতে এগিয়ে যাচ্ছে। ইতোমধ্যে বদলে যাওয়া বাংলাদেশ স্বল্পোন্নত দেশের তালিকা থেকে উন্নয়নশীল দেশে উত্তরণে জাতিসংঘের চূড়ান্ত সুপারিশ লাভ করেছে। এসবই শেখ হাসিনার যাদুকরী নেতৃত্বে সম্ভব হয়েছে। দেশের উন্নয়নের সকল কৃতিত্ব শেখ হাসিনার। তাই শেখ হাসিনার উপর বিশ্বাস রাখতে হবে। বুধবার পিরোজপুরের নাজিরপুর স্টেডিয়ামে সফল রাষ্ট্রনায়ক শেখ হাসিনার নেতৃত্বাধীন সরকারের বিগত দুই বছরের উন্নয়ন ও অগ্রযাত্রার ধারাবাহিকতায় পিরোজপুর-১ আসনের উন্নয়ন ও সম্ভাবনার দুই বছর পূর্তি উপল্েয আয়োজিত জনসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে মন্ত্রী এসব কথা বলেন।

পিরোজপুর-১ আসনের সংসদ সদস্য শ.ম রেজাউল করিম আরো বলেন, “আমি নির্বাচিত সংসদ সদস্য হিসেবে পিরোজপুরের মানুষের কাছে দায়বদ্ধ। আপনারা ভোট দিয়েছিলেন আমার বিত্ত-বৈভবকে বাড়ানোর জন্য নয়। ভোটের সময় বলেছিলাম এলাকার স্কুল-কলেজ, মসজিদ-মন্দির, রাস্তা-ঘাট উন্নয়নে আপনাদের কর্মী হিসেবে, সেবক হিসেবে কাজ করবো। সেটা আমি বিস্মৃত হতে চাইনি। সেকারণে আমি প্রাণপন দৌড়াচ্ছি। এলাকার উন্নয়নের জন্য আমি এক দপ্তর থেকে অন্য দপ্তর, এক মন্ত্রণালয় থেকে অন্য মন্ত্রণালয় ছুটে বেড়াচ্ছি। পিরোজপুরের উন্নয়ন আমার স্বপ্ন। আমার উপর বিশ্বাস রাখুন। পিরোজপুর-১ আসনে ২ হাজার ৫ শত ৮৯ কোটি ৬৫ ল টাকার অধিক অর্থমূল্যের উন্নয়ন প্রকল্প আমরা বিগত দুই বছরে পেয়েছি। এর বাইরে বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, অর্থনৈতিক অঞ্চল, হাউজিং, পলিটেকনিক ইনস্টিটিউট, টেক্সটাইল ইনস্টিটিউট, কৃষি গবেষণা ইনস্টিটিউট, হর্টিকালচার সেন্টার, কারিগরী প্রশিণ কেন্দ্রসহ অনেক প্রতিষ্ঠান পেয়েছি। পিরোজপুরে আমরা ব্রডগেজ রেল লাইন নিয়ে আসছি। আসুন আমরা সবাই মিলে উন্নত পিরোজপুর গড়ে তুলি।

নাজিরপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মনীন্দ্রনাথ মজুমদারের সভাপতিত্বে সাবেক সংসদ সদস্য অধ্য শাহ আলম, জেলা আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা এডভোকেট চন্ডি চরণ পাল, নাজিরপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ ওবায়দুর রহমান, উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান অমূল্য রঞ্জন হালদার, জেলা যুবলীগের সভাপতি আক্তারুজ্জামান ফুলু, কেন্দ্রীয় মহিলা আওয়ামী লীগের দপ্তর সম্পাদক রোজিনা নাসরিন, যুবলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য মো. কামরুজ্জামান খান শামীম, ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় সহ সম্পাদক মো. সাইফুল ইসলাম সাইফ, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান মোস্তাফিজুর রহমান রঞ্জু, শ্রীরামকাঠী উত্তম কুমার মঠের প্রতিষ্ঠাতা কুমার আচার্য, জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের আহ্বায়ক শফিউল হক মিঠু, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার শেখ আব্দুল লতিফ, উপজেলা যুবলীগের সভাপতি এম খোকন কাজী, সাধারণ সম্পাদক চঞ্চল কান্তি বিশ্বাস, জেলা পরিষদ সদস্য সুলতান মাহামুদ খান, তুহিন হালদার তিমির ও জেলা পুজা উদযাপন কমিটির সাধারণ সম্পাদক গোপাল বসু, জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক অনিকুজ্জামান অনিক সহ পিরোজপুর জেলা আওয়ামী লীগ, বিভিন্ন উপজেলা আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতৃবৃন্দ এসময় জনসভায় উপস্থিত ছিলেন। পিরোজপুর-১ আসনের (পিরোজপুর সদর-নাজিরপুর-নেছারাবাদ উপজেলা) উন্নয়ন ও সফলতা উদযাপন কমিটির এ জনসভার আয়োজন করে। এসময় পিরোজপুর-১ নির্বাচনী এলাকার পিরোজপুর সদর, নাজিরপুর ও নেছারাবাদে বিগত দুই বছরে শিা, স্বাস্থ্য, কৃষি, অবকাঠামো, যাতায়াতসহ অন্যান্য খাতে উন্নয়নের চিত্র তুলে ধরেন মন্ত্রী।

এসময় উপস্থিত ছিলেন-জেলা প্রশাসক আবু আলী মোহাম্মাদ সাজ্জাদ হোসেন, পুলিশ সুপার মো. হায়াতুল ইসলাম খান, ছাত্রলীগ, যুবলীগ ও স্বেচ্ছাসেবক লীগের কেন্দ্রীয় নেতাসহ পিরোজপুর জেলা ও বিভিন্ন উপজেলা আওয়ামী লীগের নেতারা। জনসভা শেষে রাতে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে সংগীত পরিবেশন করেন কন্ঠ শিল্পি মমতাজ বেগম এমপি, প্রতিক হাসানসহ অন্যান্য শিল্পিবৃন্দ। অনুষ্ঠান উপস্থাপনা করেন দেবাশীষ বিশ্বাস।
জনসভাকে ঘিরে স্টেডিয়াম মাঠসহ আশেপাশের এলাকা জনসমুদ্রে পরিনত হয়। দুপুরের পর থেকে উপজেলা স্টেডিয়ামে মানুষের ঢল নামে। বিকেলের মধ্যে পুরো স্টেডিয়াম মাঠের কানায় কানায় লোকে লোকারণ্য হয়ে যায়। বিকেলে পরে হাসপাতাল সড়ক, থানা সড়ক, পিরোজপুর-নাজিরপুর-গোপালগঞ্জ আঞ্চলিক মহাসড়কেও লোকে লোকারণ্য হয়ে যায়।




আরো সংবাদ পড়ুন







নাগরিক ভাবনা লাইব্রেরী

Sat Sun Mon Tue Wed Thu Fri
 123
45678910
11121314151617
18192021222324
252627282930