1. info.nagorikvabna@gmail.com : Rifan Ahmed : Rifan Ahmed
  2. smborhan.elite@gmail.com : Borhan Uddin : Borhan Uddin
  3. holysiamsrabon@gmail.com : Holy Siam Srabon : Holy Siam Srabon
  4. mdmohaiminul77@gmail.com : Mohaiminul Islam : Mohaiminul Islam
  5. ranadbf@gmail.com : rana :
  6. rifanahmed83@gmail.com : Rifan Ahmed : Rifan Ahmed
  7. newsrobiraj@gmail.com : Robiul Islam : Robiul Islam
ঘন কুয়াশার কারনে দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া নৌরুটে এ্যাম্বুলেন্স সহ সিরিয়ালে প্রায় তিনশো গাড়ি - Nagorik Vabna
শুক্রবার, ০৭ অক্টোবর ২০২২, ০৮:৩৫ পূর্বাহ্ন
ঘোষণা:
দেশব্যাপী প্রচার ও প্রসারের লক্ষে প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে। আগ্রহীরা সিভি পাঠান info.nagorikvabna@gmail.com অথবা হটলাইন 09602111973-এ ফোন করুন।

ঘন কুয়াশার কারনে দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া নৌরুটে এ্যাম্বুলেন্স সহ সিরিয়ালে প্রায় তিনশো গাড়ি

  • সর্বশেষ পরিমার্জন : মঙ্গলবার, ১৯ জানুয়ারী, ২০২১
  • ১২৬ বার পড়া হয়েছে

মোঃ সিরাজুল ইসলাম গোয়ালন্দ (রাজবাড়ী) প্রতিনিধিঃ দক্ষিন-পশ্চিমাঞ্চলের ২১ জেলার প্রবেশদ্বার দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া নৌরুটে ঘন কুয়াশার কারণে সোমবার দিনগত রাত আড়াইটা থেকে এ্যাম্বুলেন্সসহ আটকে আছে প্রায় তিনশো গাড়ি। রাজবাড়ীর দৌলতদিয়া ও মানিকগন্জের পাটুরিয়া নৌপথে ঘন কুয়াশা ও গুড়ি গুড়ি বৃষ্টির কারনে দুর্ঘটনা এড়াতে সোমবার রাত আড়াইটায় সব ধরনের নৌচলাচল বন্ধ রয়েছে। চলাচল বন্ধ থাকায় উভয় পাড়ে নদী পারের অপেক্ষায় সিরিয়ালে আটকা পড়েছে শত শত যানবাহন।

বাংলাদেশ অভ্যন্তরীন নৌপরিবহন সংস্থার ( বিআইডব্লিউটিসি) দৌলতদিয়া ঘাট শাখার সহ ব্যাবস্থাপক (বািনজ্য) মাহবুব হোসেন এই প্রতিবেদককে বলেন, সোমবার সন্ধ্যার পর থেকে নদী এলাকায় কুয়াশা পড়তে শুরু করে। রাত বারার সাথে সাথে কুয়াশার ঘনত্ব বৃদ্ধি পেতে থাকে। রাত আড়াই টার দিকে নৌপথ কুয়াশার চাদরে ঢেকে ফেলে।এ পরিস্থিতিতে রাত ২.৩০মিঃ এর দিকে যে কোন ধরনের দূর্ঘটনা এড়াতে সব ধরনের নৌযান চলাচল বন্ধ ঘোষনা করা হয়।

গুরুত্বপূর্ণ এই নৌরুটে ফেরি চলাচল বন্ধ থাকায় বিপাকে পড়েছেন দক্ষিণ-পশ্চিম অঞ্চলের হাজার হাজার যাত্রী ও পরিবহন চালকরা। দৌলতদিয়া ঘাট এলাকায় নদীর শীতল বাতাসের মধ্যে সারা রাত আটকে থাকায় সবচেয়ে বেশি কষ্টে রয়েছে শিশু ও মহিলারা।দৌলতদিয়া ঘাটে গিয়ে দেখা যায় বাস–ট্রাকের পাশাপাশি সিরিয়ালে আটকা পড়েছে বেশ কয়েকটা এ্যাম্বুলেন্স।

খুলনা থেকে ছেড়ে আসা এ্যাম্বুলেন্স চালক মতিয়ার বলেন, ভোর ৪ টায় এসেছি। এখন বেলা ১০ টা বাজে জানিনা কখন ফেরি চালু হবে।রোগির সাথে থাকা রোগীর ছোট ভাই মনিরুল ইসলাম বলেন রোগীর অবস্থা শোচনীয় খুব তারাতারি ঢাকা পৌঁছাতে হবে। তানা হলে যে কোন খারাপ কিছু ঘটে যেতে পারে। আসলে আমরা বুঝতে পারিনি এমন সমস্যায় পড়তে হবে।

দেখা যায় পরিবহনের যাত্রিদের অবস্থা খারাপ বিশেষ করে মহিলা ও শিশু যাত্রী। তীব্র শীতে নাজেহাল হয়ে পরেছেন তারা। বিআইডব্লিউটিএর বাথরুম সহ অফিস কক্ষে বসে থাকতে দেখা যায় আবার পরিবহনের যাত্রীদের। যশোর থেকে তিনদিন আগে কার্গোশিপ নিয়ে এসেছেন আমিনুল ইসলাম। এখনো পার হতে পারেননি।

তিনি বলেন, ফেরি চলাচল শুরু হলে আগে যাত্রী পরিবহন গাড়িগুলো পার হয়। যাত্রীবাহী গাড়ি পার হতে হতেই কাচামালের গাড়ি চলে আসে। অগ্রাধিকার ভিত্তিতে এগুলো পার হতে হতেই আবার ফেরি চলাচল বন্ধ হয়ে যাচ্ছে। এদিকে লাইন খরচের টাকা প্রায় শেষ হতে চলেছে। জানিনা কবে পার হতে পারবো। খুলনা হতে বস্তা বোঝাই করে মোস্তাফিজুর রহমান এসেছেন তিন ধরে তার ও একি অবস্থা।

তিনি বলেন রাস্তার সিরিয়ালে থাকার ফলে ঠিকমত খাওয়া দাওয়া ও ঘুমাতে পারছি না গত তিনদিন ধরে। এ ব্যাপারে বিআইডব্লিউটিএর ঘাট শাখার সহকারি ব্যাবস্থাপক বলেন ফেরি চলাচল শুরু করলে প্রথমে অগ্রাধিকার ভিত্তিতে এ্যাম্বুলেন্স সহ যাত্রী পরিবহন গাড়িগুলোকে অগ্রাধিকারের ভিত্তিতে পার করা হয়।

বিআইডব্লিটিসি দৌলতদিয়া কার্যালয়ের সহকারি ব্যবস্থাপক আরো বলেন ফেরি সার্ভিস বন্ধ থাকার করে বলেন, দূর্ভোগ কমাতে আটকে থাকা যাত্রীবাহী যানবাহনগুলো অগ্রাধিকার ভিত্তিতে নদী পার করা হচ্ছে। তারপর কাচামালের গাড়ি এরসাথে সাথে কিছু কার্গোশিপ সহ অন্য গাড়ি পার করা হচ্ছে।

আরো সংবাদ পড়ুন

নাগরিক ভাবনা লাইব্রেরী

Sat Sun Mon Tue Wed Thu Fri
1234567
891011121314
15161718192021
22232425262728
293031