1. news.rifan@gmail.com : admin :
  2. smborhan.elite@gmail.com : Borhan Uddin : Borhan Uddin
  3. arroy2103777@gmail.com : Amrito Roy : Amrito Roy
  4. mdmohaiminul77@gmail.com : Md Mohaiminul : Md Mohaiminul
  5. ripon11vai@gmail.com : Ripon : Ripon
  6. holysiamsrabon@gmail.com : Siam Srabon : Siam Srabon
শুক্রবার, ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৩:৫৭ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
বস্তুনিষ্ঠ সাংবাদিকতা দেশের উন্নয়নে ভূমিকা রাখে : নসরুল হামিদ মানুষের হাতে প্রয়োজনের তুলনায় বেশি টাকা রয়েছে: বাণিজ্য প্রতিমন্ত্রী ৫ বছরে সরকারি চাকরি পেয়েছেন কতজন, জানালেন জনপ্রশাসনমন্ত্রী নির্দেশনা না মানলে কঠোর শাস্তির হুঁশিয়ারি স্বাস্থ্যমন্ত্রীর ‘বিএনপির আটক কর্মীদের মুক্তির সঙ্গে নির্বাচনের সম্পর্ক নেই’ বিদ্যুৎ ও জ্বালানির দাম বৃদ্ধি সরকারের একটি অমানবিক খেলা: রিজভী একা একা লাগে মাহিয়া মাহির রমজানে দ্রব্যমূল্য নিয়ন্ত্রণে রাখবে সরকার: কাদের চুয়াডাঙ্গা-২ আসনের সংসদ সদস্য টগরকে নাগরিক সংবর্ধনা ঝিনাইদহের কালীগঞ্জে ৩৩টি গাঁজাগাছ সহ নারী গ্রেপ্তার




হ্যাঁ, আমরা খারাপ— পিয়ার ইঙ্গিতপূর্ণ স্ট্যাটাস

  • সর্বশেষ পরিমার্জন: বৃহস্পতিবার, ১৪ ডিসেম্বর, ২০২৩
  • ২৮ বার পঠিত

সংগীতশিল্পী অনুপম রায়ের সঙ্গে বিচ্ছেদের দুই বছর পর অভিনেতা পরমব্রত চ্যাটার্জিকে বিয়ে করেছেন সমাজকর্মী পিয়া চক্রবর্তী। এই যুগলের বিয়ের পর থেকেই সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে চলছে ব্যাপক আলোচনা।

কেউ বলছেন, পরমব্রত-পিয়ার পরকীয়ার কারণে সংসার ভেঙেছিল অনুপমের। আবার কারো মন্তব্য, বন্ধু হয়েও অনুপমকে ঠকিয়েছেন এই জুটি। রীতিমতো পরমব্রত ও পিয়ার চরিত্র নিয়ে কাটাছেঁড়ায় ব্যস্ত হয়ে পড়েছেন নেটিজেনরা।

যদিও বিয়ে নিয়ে শুরু থেকেই চুপ ছিলেন তারা। তবে এবার যেন সমালোচকদের একটু জবাবই দিতে শুরু করলেন টলিউডের নতুন এই দম্পতি। সম্প্রতি ইনস্টাগ্রামে একটি স্থিরচিত্র প্রকাশ করেছেন পিয়া চক্রবর্তী। যেখানে নিন্দুকদের দিকে দুই আঙুল উচিয়ে বলেছেন, ‘হ্যাঁ, আমরা খারাপ নারী।’

পরমব্রতের স্ত্রীর এমন ক্যাপশনের অর্থ বুঝতে অসুবিধা হয়নি নেটিজেনদের। কারণ দ্বিতীয় বিয়ের পর সবচেয়ে বেশি সমালোচনা হয়েছে তাকে নিয়েই। বিশেষ করে অনুপমের ভক্তরা, পিয়ার চরিত্র নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন, কটাক্ষ করেছেন। তাদের কটাক্ষের উত্তরেই যেন এমন কিছু বললেন এই সমাজকর্মী।

এর আগে এক সাক্ষাৎকারে পরমব্রত চ্যাটার্জি বলেছেন, ‘বিয়ের পর এমন এক অদ্ভুত সিচুয়েশনের মধ্যে রয়েছি, যা বলে বোঝানো যাবে না। একদিকে যেমন আমাদের বিবাহিত জীবন সুখী হওয়ার শুভেচ্ছা আসছে, অন্যদিকে ট্রলিংয়ের বন্যা বয়ে গেছে। নানা ধরনের নানা রকমের ট্রলিং। কী করব, কী বলব, ঠিক বুঝে উঠতে পারছি না। কারণ আমি ট্রলিং ফলো করি না এবং সেই সময়ও আমার নেই।’

এই অভিনেতা আরও বলেন, ‘কাছের মানুষদের কাছ থেকে, বন্ধু-বান্ধবদের কাছ থেকে ট্রলিংয়ের বিষয় শুনতে পাচ্ছি এবং অদ্ভুত একটা অনুভূতি হচ্ছে, যা বলে বোঝাতে পারব না। আবার বহু প্রিয় মানুষ, বন্ধু-বান্ধব অনুরাগীরা আমার নতুন জীবনের জন্য শুভেচ্ছা জানাচ্ছেন। প্রথম একটা সপ্তাহ এই শুভেচ্ছা ও ট্রলিংয়ের ব্যালেন্সটা সামলাতেই চলে যায়। তারপর বাইরে ঘুরতে গিয়েছিলাম, খুব ভালো সময় কাটিয়েছি; মাত্র দেশে ফিরেছি। তবে আমি সবকিছুই খুব স্পোর্টিংলি নিয়ে থাকি।’

সবশেষ পরমব্রত বলেন, ‘এই পুরো বিষয়ে যে কটা নাম জড়িয়েছে অনুপম, ইকা বা পিয়া তাঁরা সকলেই আমার আপনজন। প্রত্যেকেই প্রাপ্তবয়স্ক। তাই সেই সম্মান বজায় রাখাটা বর্তমান এবং ভবিষ্যৎ সবকিছুর জন্যই ভীষণভাবে জরুরি। তবে সম্পর্কে সম্মান থাকা প্রয়োজন।একে অন্যকে ভালোবেসে ঘর বাঁধা নিয়ে কে কী বলল, তাতে কিছুই যায়-আসে না।

প্রসঙ্গত, ২০২১ সালে পিয়া চক্রবর্তীর সঙ্গে বিচ্ছেদের ঘোষণা দেন অনুপম রায়। সেসময় গুঞ্জন উঠেছিল, পরমব্রতর সঙ্গে পরকীয়ার কারণে অনুপমের সংসার ভেঙেছে। যদিও তা অস্বীকার করেন পরমব্রত। কিন্তু দুই বছর পর সেই পিয়ার গলায় মালা দিয়েই সমালোচনার মুখে পড়েছেন তিনি।



সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করুন

আরও খবর...