1. news.rifan@gmail.com : admin :
  2. smborhan.elite@gmail.com : Borhan Uddin : Borhan Uddin
  3. arroy2103777@gmail.com : Amrito Roy : Amrito Roy
  4. mdmohaiminul77@gmail.com : Md Mohaiminul : Md Mohaiminul
  5. ripon11vai@gmail.com : Ripon : Ripon
  6. holysiamsrabon@gmail.com : Siam Srabon : Siam Srabon
সোমবার, ০৪ মার্চ ২০২৪, ০৫:২৫ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
মাদারীপুরে বাসের ধাক্কায় চলন্ত মোটরসাইকেলে আগুন, নিহত-১ দেশসেরা ক্যাডেট ইনসেন্টিভ এওয়ার্ড পেলেন কুবি বিএনসিসির সিইউও সাদী  বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়ের নতুন উপাচার্য অধ্যাপক ড. বদরুজ্জামান ভূঁইয়া  রমজানে কোনো পণ্যের দাম বাড়বে না: বাণিজ্য প্রতিমন্ত্রী মুরাদনগরে নব-নির্বাচিত দুই সংসদ সদস্যকে সংবর্ধনা মৃত্যুর পূর্বপর্যন্ত গরীবের পাসেই থাকবো: মুর্শিদ বাঘায় আম বাগান ও ফসলি জমিতে পুকুর খননের হিড়িক সক্রিয় আন্তঃজেলা অপরাধী চক্র, অতিষ্ঠ বলেশ্বর নদীর দুপারের মানুষ উজিরপুরে ডিবির হাতে ২ কেজি গাজা সহ ২ মাদক কারবারি গ্রেফতার বাহার ও রয়েল ডায়াগণষ্টিক সেন্টারকে ১ লক্ষ টাকা জরিমানা




শ্রীপুরে চলাচলের রাস্তা বন্ধ করে টিনের সীমানা প্রচীর নির্মাণ

  • সর্বশেষ পরিমার্জন: সোমবার, ১১ ডিসেম্বর, ২০২৩
  • ১৪ বার পঠিত

আবুসাঈদ: গাজীপুরের শ্রীপুরে এক ব্যবসায়ী পরিবারের জমির যাতায়াতের একমাত্র সড়ক বন্ধ করে টিন শেডের সীমানা প্রচীর নির্মাণের অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় ভুক্তভোগী ব্যবসায়ী পরিবার হাবিবুর রহমান বাবুল শ্রীপুর থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন। অভিযোগ পেয়ে সকালে সড়ক বন্ধ করে দেয়ার ঘটনায় ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন শ্রীপুর থানার পরিদর্শক (অপারেশন) সোহেল রানা।

ভুক্তভোগী কেওয়া গ্রামের ব্যবসায়ী হাবিবুর রহমান বাবুল বলেন, স্থানীয় কামাল হোসেন ও রুবেল আহমেদ ভাঙ্গীর নেতৃত্বে একদল সন্ত্রাসী খুটি বাহিনী জোরপূর্বক সড়কের উপরে টিন শেডের সীমানা প্রচীর নির্মাণ করে চলাচলের রাস্তা বন্ধ করে দিয়েছে। এতে ব্যবসায়ী পরিবারের সদস্যরা এক প্রকার জিম্মি হয়ে রয়েছে।

অভিযোগ সুত্রে আরো জানা যায় ভাংনাহাটি গ্রামের শামসুল হকের ছেলে কামাল হোসেন ও একই গ্রামের রহিম আলী ভাংগীর ছেলে রুবেল হোসেন ভাংগীসহ অজ্ঞাত ৪/৫ জন লোক কিছু দিন দরে ১০ লক্ষ টাকা চাঁদা দাবি করে আসছে। চাঁদার টাকা দিতে অনিহা প্রকাশ করলে এক পর্যায়ে গত ৬ ডিসেম্বর বিকেলে কেওয়া নতুন বাজারস্থ লিটগার্ড ফ্যাক্টরীর নিকট রাস্তায় একা পেয়ে প্রথমে গালিগালাজ শুরু করে পরে হুমকি দিয়া তাহার প্রতিষ্ঠান আশিক এন্টার প্রাইজের নামীয় ২০ লক্ষ টাকার একটি পে অর্ডার চেক যাহার নং- ১৭৬২০৩৬, জোরপূর্বক ছিনিয়ে নিয়া যায়। অভিযোগকারী হাবিবুর রহমান বাবুল আরো জানান আমরা শান্তি প্রিয় ও নিরহ মানুষ একজন ব্যবসায়ী। আমি ও আমার সঙ্গীয় আফাজ মোল্লা কিছু অর্থ বিনিয়োগ করে জমি জমা ক্রয় করি এবং জমি বিক্রয় করি। এখানে যে প্রতিষ্ঠান হচ্ছে সেই জমি বিক্রির লাভের টাকা তাদের না দেওয়ায় আজকে এই ঝামেলা করছে।

এ বিষয়ে শ্রীপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এ এফ এম নাসিম জানান, অভিযোগ পেয়েছি তদন্ত করে আইনানুগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।



সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করুন

আরও খবর...