1. news.rifan@gmail.com : admin :
  2. smborhan.elite@gmail.com : Borhan Uddin : Borhan Uddin
  3. arroy2103777@gmail.com : Amrito Roy : Amrito Roy
  4. hmgkrnoor@gmail.com : Golam Kibriya : Golam Kibriya
  5. mdmohaiminul77@gmail.com : Md Mohaiminul : Md Mohaiminul
  6. ripon11vai@gmail.com : Ripon : Ripon
  7. holysiamsrabon@gmail.com : Siam Srabon : Siam Srabon
বৃহস্পতিবার, ১৮ এপ্রিল ২০২৪, ০৯:১২ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
গুরুদাসপুরে প্রাণিসম্পদ প্রদর্শনী মেলার উদ্বোধন মাদারগঞ্জে প্রাণিসম্পদ সেবা সপ্তাহ পালিত আদালতের নির্দেশ অমান্য করে সাঁথিয়ায় মাতৃগর্ভে থাকা শিশুর লিঙ্গ পরিচয় প্রকাশ গাজীপুরে গভীর রাতে ভয়াবহ অগ্নিকান্ড, ১০টি দোকানের ক্ষয়ক্ষতি হোমনায় প্রাণিসম্পদ প্রদর্শনীব উদ্বোধন সোনাগাজীতে কবরস্থানের জন্য জমি দান করে,নজির গড়লেন হিন্দু পরিবার হরিপুরে প্রাণিসম্পদ প্রদর্শনী অনুষ্ঠিত মঠবাড়িয়ায় পৌর ছাত্রলীগের উদ্যোগে খাবার পানি ও স্যালাইন বিতরণ ইসরায়েলের সঙ্গে গুগলের চুক্তি, বিরোধিতা করায় চাকরি গেল ২৮ কর্মীর গাজা: বিমান হামলায় বেঁচে যাওয়া বালকের প্রাণ গেল সাহায্য নিতে গিয়ে




শরণখোলায়  সাংবাদিক পরিচয়ে প্রতিবেশীদের হয়রানীর অভিযোগে সংবাদ সম্মেলন

  • সর্বশেষ পরিমার্জন: সোমবার, ৪ মার্চ, ২০২৪
  • ৭১ বার পঠিত
মোঃ শাহাদাত হোসাইন, শরণখোলা (বাগেরহাট) প্রতিনিধি:  বাগেরহাটের শরণখোলায় সরকারি কলেজে কর্মরত এবং  সাংবাদিক পরিচয়দানকারী কম্পিউটার কাম মেকানিক্স মনিরুজ্জামান আকন ও তার ভাই মিজান আকনের বিরুদ্ধে প্রতিবেশীদের বিভিন্নভাবে হয়রানি, জমি দখল, হাঁসমুরগী চুরি ও পরনারীর আসক্তের অভিযোগ এনে সংবাদ সম্মেলন করেছে রিপন আকন।
৪ মার্চ দুপুরে শরণখোলা উপজেলা প্রেসক্লাবে এক জনাকীর্ণ সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, উপজেলার মঠেরপাড় গ্রামের বাসিন্দা মাস্টার ইয়াকুব আলী আকনের পুত্র মনিরুজ্জামান আকন নিজেকে কলেজের প্রফেসর ও সাংবাদিক পরিচয় দিয়ে তার প্রতিবেশী রিপন আকন, ইকরাম আকন, রাজামিয়া আকন, শহিদ আকন সহ এলাকার অনেকের সাথে তুচ্ছ ঘটনা নিয়ে প্রায়ই ঝগড়া বিবাদে লেগে থাকে। এছাড়া গত ২৪ ফেব্রুয়ারি ইকরাম আকনের দুটি হাঁস তাদের বাড়ির পুকুরে গেলে তার একটি জবাই করে খায় বলে অভিযোগ করেন ইকরাম আকন ও রিপন আকন।
এ নিয়ে গত ২৫ ফেব্রুয়ারি শব-ই-বরাতের রাতে মসজিদে নামাজ শেষে মনিরুজ্জামান আকন ও তার ভাই মিজান আকন ও তার বাবা ইয়াকুব আকনের সাথে কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে হাতাহাতির ঘটনা ঘটে। পরে বিষয়টি একই এলাকার বাসিন্দা ও উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আবুল হোসেন নান্টু মিমাংশা করে দেওয়ার কথা বলেন। কিন্তু মনিরুজ্জামান ও মিজান মিমাংশায় না গিয়ে শরণখোলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি হয়ে স্থানীয় সোশাল মিডিয়ায় ইকরাম আকনকে মাদক সম্রাট বলে আখ্যায়িত করে। এছাড়া আমার আপন ভাই রাজা মিয়া আকন, চাচাতো ভাই শহিদ আকন, রিপন আকন ও মধু আকনের নামে মনগড়া ভিত্তিহীন অভিযোগ তুলে ধরে।
সংবাদ সম্মেলনে  লিখিত অভিযোগে তিনি আরও জানান, মনিরুজ্জামান আকন ও তার পরিবার অন্যের জমি জবর দখল, গরু-ছাগলের পা পিটিয়ে ভেঙ্গে দেওয়া সহ বিভিন্ন অপকর্মে লিপ্ত থাকে। কয়েক মাস পূর্বে নলবুনিয়া বাজারে মনিরুজ্জামান আকন একটি মেয়েকে ধর্ষনের চেষ্টাকালে এলাকাবাসীর গনধোলাইয়ের শিকার হন ও তার ভাই মিজান আকন ৪/৫ মাস পূর্বে খোন্তাকাটা ক্লিনিকে এক নার্সকে ধর্ষনের চেষ্টাকালে এলাকাবাসীর হাতে আটক ও গণধোলাইয়ের শিকার হয়।
এ ব্যাপারে মনিরুজ্জামান আকন বলেন, নারী সংক্রান্ত বিষয়টি মিথ্যা। ইকরাম আকন ও রিপন আকনের সাথে তাদের জমি-জমা সংক্রান্ত বিরোধ রয়েছে। এছাড়া হাঁস সংক্রান্ত বিষয়টি নিয়ে তারা মসজিদ এলাকায় আমার বাবা, ভাই সহ আমাকে অন্যায় ভাবে মারধর করেছে। এ বিষয়টি ঢাকতে আমাদের বিরুদ্ধে মিথ্যা অভিযোগ দায়ের করেছে।
এব্যাপারে খোন্তাকাটা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান জাকির হোসেন খান মহিউদ্দিন বলেন, মনিরুজ্জামান আকনের পরিবারের সাথে রিপন আকন ও ইকরাম আকনের সাথে পারিবারিক ঝামেলা আছে। তাদের পারিবারিক সমস্যা বিভিন্ন সময় সমাধানের চেষ্টা করেছি।



সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করুন

আরও খবর...