1. news.rifan@gmail.com : admin :
  2. smborhan.elite@gmail.com : Borhan Uddin : Borhan Uddin
  3. arroy2103777@gmail.com : Amrito Roy : Amrito Roy
  4. mdmohaiminul77@gmail.com : Md Mohaiminul : Md Mohaiminul
  5. ripon11vai@gmail.com : Ripon : Ripon
  6. holysiamsrabon@gmail.com : Siam Srabon : Siam Srabon
শুক্রবার, ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৩:৩৬ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
বস্তুনিষ্ঠ সাংবাদিকতা দেশের উন্নয়নে ভূমিকা রাখে : নসরুল হামিদ মানুষের হাতে প্রয়োজনের তুলনায় বেশি টাকা রয়েছে: বাণিজ্য প্রতিমন্ত্রী ৫ বছরে সরকারি চাকরি পেয়েছেন কতজন, জানালেন জনপ্রশাসনমন্ত্রী নির্দেশনা না মানলে কঠোর শাস্তির হুঁশিয়ারি স্বাস্থ্যমন্ত্রীর ‘বিএনপির আটক কর্মীদের মুক্তির সঙ্গে নির্বাচনের সম্পর্ক নেই’ বিদ্যুৎ ও জ্বালানির দাম বৃদ্ধি সরকারের একটি অমানবিক খেলা: রিজভী একা একা লাগে মাহিয়া মাহির রমজানে দ্রব্যমূল্য নিয়ন্ত্রণে রাখবে সরকার: কাদের চুয়াডাঙ্গা-২ আসনের সংসদ সদস্য টগরকে নাগরিক সংবর্ধনা ঝিনাইদহের কালীগঞ্জে ৩৩টি গাঁজাগাছ সহ নারী গ্রেপ্তার




ভাই ফোঁটা দিয়ে বাড়ি ফিরে দেখেন পতির রক্তাক্ত লাশ

  • সর্বশেষ পরিমার্জন: বুধবার, ১৫ নভেম্বর, ২০২৩
  • ৬৭ বার পঠিত

মাধবদী (নরসিংদী) প্রতিনিধি: প্রাচীনযুগ হতেই হিন্দু ধর্মালম্বী পরিবারে বোনেরা তার ভাইয়ের জীবন বিপদমুক্ত রাখার কামনায় ভাইয়ের কপালে ভাই ফোঁটা দিয়ে বছরের একটি দিনকে ভাই ফোঁটা দিবস হিসেবে আনন্দ উৎসবের সাথে পালন করে আসছে। সেই ভাই ফোঁটার দিবসে ভাইয়ের কপালে ভাই ফোঁটা দিয়ে পরদিন সকালে বাড়ি ফিরে এসে এক বোন দেখতে পান তার নিজ পতির রক্তাক্ত লাশ। বুধবার(১৫ নভেম্বর) সকালে মাধবদীর নুরালাপুর ইউনিয়নের বিরামপুরে এমনই এক ঘটনা ঘটে।

ঘটনার বিবরণে জানা যায়, বিরামপুর গ্রামের নির্মল দেবনাথের(৪৫) পত্নী ও তার সন্তানেরা মঙ্গলবার (১৪ নভেম্বর) সন্ধ্যায় ভাই ফোঁটার অনুষ্ঠানে যোগ দিতে পিতার বাড়ি নরসিংদীতে বেড়াতে যান। ফলে, নির্মল দেবনাথ বিরামপুরের নিজ বাড়িতে রাতে একা ছিলেন। পরে রাতের কোন এক সময় দুর্বৃত্তরা ডাকাতির উদ্দেশ্যে নির্মল দেবনাথের ঘরে ঢুকে। এসময় ডাকাতির কাজে বাধা দেওয়ায় তাকে হত্যা করা হতে পারে এমন ধারণা করা হচ্ছে বলে জানান মাধবদী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওসি মোহাম্মদ কামরুজ্জামান মিলন।

নিহত নির্মল দেবনাথ কিশোরগঞ্জের কটিয়াদী থানাধীন গোথালিয়া এলাকার রঞ্জিত দেবনাথের ছেলে। বর্তমানে তিনি মাধবদীর নুরালাপুর ইউনিয়ন দক্ষিণ বিরামপুর এলাকায় বসবাস করে আসছে।

নিহতের স্ত্রী জানায়, গতকাল সন্ধ্যায় ভাইফোটা দেওয়ার উদ্দেশ্যে তিনি তার তিন ছেলে ও এক মেয়েক নিয়ে তার পিতার বাড়িতে যায়। পরে আজ সকাল ৯টায় এসে বাড়িঘরের আসবাবপত্র এলোমেলো ও তার স্বামীকে মৃত অবস্থায় দেখতে পেয়ে পুলিশে খবর দেয়। খবর পেয়ে মাধবদী থানা পুলিশ ও পিবিআই নরসিংদী তাৎক্ষণিকভাবে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে নিহতের লাশ উদ্ধার করে মর্গে পাঠানো হয়েছে।

নিহতের ছেলে দূর্লভ দেবনাথ জানায়, বুধবার সকালে তারা তার মামার বাড়ি হতে নিজ বাড়ি এলে বাড়ির এদরজা ভাঙ্গা, এলোমেলো বিছানা ও জিনিসপত্র এবং তার পিতা নির্মল দেবনাথের লাশ দেখতে পায়। পরে রান্না ঘরে গেলে সেখানে রান্না ঘরের দেয়ালে এক্সহাস্ট ফ্যানের স্থানটি ফাঁকা দেখতে পায়। ধারণা করা হচ্ছে দূর্বত্বরা সেই ফ্যানের গ্যাপ দিয়ে ঘরের ভেতরে প্রবেশ করে থাকতে পারে।



সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করুন

আরও খবর...