1. news.rifan@gmail.com : admin :
  2. smborhan.elite@gmail.com : Borhan Uddin : Borhan Uddin
  3. arroy2103777@gmail.com : Amrito Roy : Amrito Roy
  4. hmgkrnoor@gmail.com : Golam Kibriya : Golam Kibriya
  5. mdmohaiminul77@gmail.com : Md Mohaiminul : Md Mohaiminul
  6. ripon11vai@gmail.com : Ripon : Ripon
  7. holysiamsrabon@gmail.com : Siam Srabon : Siam Srabon
বৃহস্পতিবার, ১৮ এপ্রিল ২০২৪, ০৭:২৫ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
গুরুদাসপুরে প্রাণিসম্পদ প্রদর্শনী মেলার উদ্বোধন মাদারগঞ্জে প্রাণিসম্পদ সেবা সপ্তাহ পালিত আদালতের নির্দেশ অমান্য করে সাঁথিয়ায় মাতৃগর্ভে থাকা শিশুর লিঙ্গ পরিচয় প্রকাশ গাজীপুরে গভীর রাতে ভয়াবহ অগ্নিকান্ড, ১০টি দোকানের ক্ষয়ক্ষতি হোমনায় প্রাণিসম্পদ প্রদর্শনীব উদ্বোধন সোনাগাজীতে কবরস্থানের জন্য জমি দান করে,নজির গড়লেন হিন্দু পরিবার হরিপুরে প্রাণিসম্পদ প্রদর্শনী অনুষ্ঠিত মঠবাড়িয়ায় পৌর ছাত্রলীগের উদ্যোগে খাবার পানি ও স্যালাইন বিতরণ ইসরায়েলের সঙ্গে গুগলের চুক্তি, বিরোধিতা করায় চাকরি গেল ২৮ কর্মীর গাজা: বিমান হামলায় বেঁচে যাওয়া বালকের প্রাণ গেল সাহায্য নিতে গিয়ে




বন্ধুর পরীক্ষার প্রক্সি দিয়ে ধরা,তরুণের কারাদন্ড

  • সর্বশেষ পরিমার্জন: সোমবার, ২২ মে, ২০২৩
  • ১২৪ বার পঠিত

মোজাম্মেল হক লিটন, চাটখিল (নোয়াখালী) প্রতিনিধি: নোয়াখালীর সেনবাগ উপজেলায় এসএসসি’র ব্যবসায় শিক্ষার পরীক্ষায় প্রক্সি দেওয়ায় সময় এক তরুণকে আটক করা হয়েছে। পরে তাকে ১৫ দিনের বিনাশ্রম কারাদান্ড দিয়েছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত।

সোমবার (২২ মে) দুপুর ১২টার দিকে সেনবাগ সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ে ব্যবসায় শিক্ষার পরীক্ষায় এ ঘটনা ঘটে। এরপর সেখানে সেনবাগ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট নাজমুন নাহার স্বাক্ষ্য প্রমাণের ভিত্তিতে এ সাজা প্রদান করেন।

দন্ডপ্রাপ্ত হাসিবুর রহমান (২০) উপজেলার ৪নং কাদরা ইউনিয়নের দক্ষিণ কাদরা গ্রামের হাবিবুর রহমানের ছেলে এবং ফেনীর দাগনভূঞার ইকবাল ডিগ্রি কলেজের একাদশ শ্রেণির শিক্ষার্থী। সেনবাগ সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী আশ্রাফুর রহমান নামে তার এক বন্ধুর ব্যবসায় শিক্ষা পরীক্ষায় প্রক্সি দেয়ার সময় তাকে আটক করা হয়।

সেনবাগ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট নাজমুন নাহার বলেন, ওই তরুণের প্রবেশপত্র ও রেজিস্টেশন কার্ড যাচাই-বাছাই ও জিজ্ঞাসাবাদ শেষে সে অন্যের (আশ্রাফুর রহমানের) প্রক্সি দেয়ার কথা স্বীকার করে। পরে ওই তরুণকে সাজা দিয়ে পুলিশের কাছে সোর্পদ করা হয়। আর প্রকৃত ছাত্র আশ্রাফুর রহমানকে পরীক্ষা থেকে বহিস্কার করা হয়।



সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করুন

আরও খবর...