1. news.rifan@gmail.com : admin :
  2. smborhan.elite@gmail.com : Borhan Uddin : Borhan Uddin
  3. arroy2103777@gmail.com : Amrito Roy : Amrito Roy
  4. hmgkrnoor@gmail.com : Golam Kibriya : Golam Kibriya
  5. mdmohaiminul77@gmail.com : Md Mohaiminul : Md Mohaiminul
  6. ripon11vai@gmail.com : Ripon : Ripon
  7. holysiamsrabon@gmail.com : Siam Srabon : Siam Srabon
মঙ্গলবার, ১৬ এপ্রিল ২০২৪, ০২:৩৩ অপরাহ্ন
শিরোনাম :




পরিবার কল্যাণ সহকারী পদে নিয়োগে ঠিকানা জালিয়াতির অভিযোগ

  • সর্বশেষ পরিমার্জন: বৃহস্পতিবার, ১৮ মে, ২০২৩
  • ১৩৬ বার পঠিত
মোঃ রায়হান মাহামুদ: গাজীপুরের কালীগঞ্জে জাতীয় পরিচয়পত্র ও ঠিকানা গোপন করে ভুয়া ঠিকানা দিয়ে পরিবার পরিকল্পনার অধিদপ্তরের পরিবার কল্যাণ সহকারী পদে নিয়োগের অভিযোগ উঠেছে ইউনিয়নের ফ্যামিলি প্লানিং ইনস্পেক্টর নাজমুল হকের স্ত্রী ফারজানা আক্তার নিলার বিরুদ্ধে। সে জাংগালিয়া ইউনিয়নের ২নং ওয়ার্ড জাংগালিয়া গ্রামের স্থায়ী বাসিন্দা।
এ বিষয়ে নিয়োগ প্রাপ্ত ফারজানা আক্তার নিলার নিকট জানতে চাইলে তিনি তথ্য গোপনের বিষয়টি অস্বীকার করে বলেন, আমার বাবার বাড়ি কাপাসিয়া উপজেলার সদর ইউনিয়নের বর্জনা গ্রামে হলেও ও স্বামীর বাড়ী কালীগঞ্জের জাংগালিয়ার ঠিকানায় আবেদন করি।
নিয়োগ সূত্রে যানা যায়, পরিবার পরিকল্পনার অধিদপ্তরের ২১ জুন ২০২১ এর জেপপ/ গাজী/ নিয়োগ/ ২০২১/১০৪৮ এর রাজস্বখাতভুক্ত শূন্যপদে জাংগালিয়া-৩, ২/গ (২/জিএ) আজমতপুর, সালদিয়া, কুলথুন ও মৈশুন্ডি এলাকার স্থায়ী বাসিন্ধাদের মধ্যে একজন নিয়োগ দেওয়া দেয়া হবে। উল্লেখিত পরিবার কল্যাণ সহকারী পদে ২০২১ সালের ১৭ ডিসেম্বর লিখিত পরীক্ষায় অংশ গ্রহন করে ৭ জন উত্তির্ণ হয়।
 উত্তির্ণরা ২০২২ সালের ৬ ডিসেম্বর ভাইবাতে অংশ গ্রহন করলে চলতি মাসের ১৬ মে ফলাফল প্রকাশ করে। এদের মধ্যে ফারজানা আক্তার নিলা উল্লেখিত শূন্যপদে নিয়োগ প্রাপ্ত হয়। সে জাংগালিয়া ইউনিয়নের ফ্যামিলি প্লানিং ইনস্পেক্টর নাজমুলের স্ত্রী। নিয়োগ প্রাপ্ত ফারজানা আক্তার নিলা প্রকৃত পরিচয় গোপন করে প্রতারণার মাধ্যমে ভুয়া ঠিকানায় জাতীয় পরিচয়পত্র তৈরি করে উল্লেখিত পদে নিয়োগ প্রাপ্ত হয়। অন্য এলাকার বাসিন্দা হয়ে নিয়োগ প্রাপ্ত হওয়ায় এলাকায় ব্যাপক চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে। ডিজিটাল যুগে এমন জালিয়াতি কল্পনাকেও হার মানিয়েছে বলে জানিয়াছে স্থানীয়রা।
এ ব্যাপারে গাজীপুরের জেলা প্রশাসক মো. আনিসুর রহমান বলেন- ইতিপূর্বে যাদেরকে নিয়োগ দেয়া হয়েছে পুলিশের মাধ্যমে তদন্তে তথ্যে কোন ভুল প্রমাণিত হলে তাদের নিয়োগ দেওয়া হবেনা।
এ বিষয়ে পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তরের ডিডি মেহেরুন নেছা বলেন, পরিচয় গোপন করে ভুয়া ঠিাকানা দিয়ে প্রতারণা করে চাকরি করার সুযোগ নেই। নিয়োগ প্রাপ্তদের ঠিকানা পুলিশের মাধ্যমে তদন্ত করে নিয়োগ চ‚ড়ান্ত করা হবে।
এ বিষয়ে জাংগালিয়া ইউপি সদস্য ফারুক খান বলেন, ফ্যামিলি প্লানিং ইন্সপেক্টর নাজমুল হক ও তার স্ত্রী নিলা আক্তার আজমতপুর, সালদিয়া, কুলথুন ও মৈশুন্ডি এলাকার বাসিন্দা নয়। ডিজিটাল যুগে এমন প্রতারণ সত্যিই দুঃখজনক।
এ বিষয়ে মুঠো ফোনে ইউনিয়নের ফ্যামিলি প্লানিং ইন্সপেক্টর নাজমুল হকের নিকট স্ত্রী নিলার নিয়োগ সম্পর্কে জানতে চাইলে তিনি ফারজানা আক্তার নিলাকে স্ত্রী হিসেবে অস্বীকার করেন এবং আপনাদের সাথে সাক্ষাতে কথা হবে বলে ফোন রেখে দেন।
নাগরিক ভাবনা/এইচএসএস



সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করুন

আরও খবর...