1. news.rifan@gmail.com : admin :
  2. smborhan.elite@gmail.com : Borhan Uddin : Borhan Uddin
  3. arroy2103777@gmail.com : Amrito Roy : Amrito Roy
  4. hmgkrnoor@gmail.com : Golam Kibriya : Golam Kibriya
  5. mdmohaiminul77@gmail.com : Md Mohaiminul : Md Mohaiminul
  6. ripon11vai@gmail.com : Ripon : Ripon
  7. holysiamsrabon@gmail.com : Siam Srabon : Siam Srabon
মঙ্গলবার, ১৬ এপ্রিল ২০২৪, ০১:৪৬ অপরাহ্ন
শিরোনাম :




দেশের উত্তর–পূর্বাঞ্চলে আকস্মিক বন্যার পূর্বাভাস, বাড়তে পারে তাপমাত্রাও

  • সর্বশেষ পরিমার্জন: সোমবার, ৩ এপ্রিল, ২০২৩
  • ১০৪ বার পঠিত

দেশের উত্তর-পূর্বাঞ্চলে চলতি মাসে আকস্মিক বন্যা হতে পারে। এছাড়া বৃষ্টি, বজ্রবৃষ্টি, কালবৈশাখী ও ঘূর্ণিঝড়ের পূর্বাভাসও দেয়া হয়েছে। দেশের কোনো কোনো জেলায় তাপপ্রবাহ বয়ে যেতে পারে।

আবহাওয়া অধিদফতরের দীর্ঘমেয়াদি এক পূর্বাভাসে কথাগুলো বলা হয়েছে।

আবহাওয়াবিদরা জানিয়েছেন, এ মাসের শেষের দিকে সিলেট অঞ্চলে (উত্তর-পূর্বাঞ্চল) স্বল্পমেয়াদি বন্যা হতে পারে।

রোববার (২ এপ্রিল) অধিদফতরের ঢাকার ঝড় সতর্কীকরণ কেন্দ্রে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে দীর্ঘমেয়াদি পূর্বাভাসের জন্য গঠিত বিশেষজ্ঞ কমিটির নিয়মিত বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। অধিদফতরের পরিচালক এবং এ কমিটির চেয়ারম্যান মো.আজিজুর রহমান এতে সভাপতিত্ব করেন।

আবহাওয়া দফতরের দীর্ঘমেয়াদি পূর্বাভাসে আরও বলা হয়, এ মাসে দেশে স্বাভাবিকের চেয়ে বেশি বৃষ্টি হবে। তিন থেকে পাঁচ দিন বজ্র ও শিলাবৃষ্টিসহ হালকা বা মাঝারি ধরনের বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে। এক থেকে দুই দিন তীব্র কালবৈশাখী ঝড়ও হতে পারে। মাসের শেষ দিকে দেশের উত্তর-পূর্বাঞ্চল ও এর কাছাকাছি উজানে মাঝারি থেকে ভারি বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা আছে। এর পরিপ্রেক্ষিতে দেশের উত্তর-পূর্বাঞ্চলে স্বল্পমেয়াদি আকস্মিক বন্যা পরিস্থিতির সৃষ্টি হতে পারে। চলতি মাসে বঙ্গোপসাগরে এক থেকে দুটি লঘুচাপের সৃষ্টি হতে পারে, যার মধ্যে একটি ঘূর্ণিঝড়ে রূপ নিতে পারে। আবার এ মাসেই দুই থেকে তিনটি মৃদু ও মাঝারি ধরনের তাপপ্রবাহ বয়ে যেতে পারে।

দেশে গত মার্চ মাসে স্বাভাবিকের চেয়ে বেশি বৃষ্টি হয়েছে। চৈত্র মাসের অর্ধেকের বেশি সময় চলে গেছে। তবে এ মাসের পরিচিত দাবদাহ তেমন অনুভূত হয়নি। দেশের দুই-একটি জায়গায় মৃদু তাপপ্রবাহ বয়ে গেছে কিছু সময়ের জন্য। তবে মাসের বেশির ভাগ সময় আবহাওয়া মোটামুটি অনুকূল ছিল।

এপ্রিল মাসের মাঝামাঝি সময়ের পর ঘূর্ণিঝড় সৃষ্টির সম্ভাবনা আছে। এর আগে হওয়ার সম্ভাবনা কম। এছাড়া আগামী কয়েক দিন বৃষ্টি কম হবে। এ কারণে বাড়তে পারে তাপমাত্রাও। এ সময়ে শুধু সিলেট অঞ্চলে কিছুটা বৃষ্টি হতে পারে। এরপর ১০ থেকে ১১ এপ্রিলে দেশের বিভিন্ন স্থানে বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা রয়েছে।

আবহাওয়া অধিদফতরের গত মার্চ মাসের পর্যবেক্ষণ তুলে ধরে দীর্ঘমেয়াদি পূর্বাভাস প্রতিবেদনে বলা হয়, গত মাসে সার্বিকভাবে সারাদেশে স্বাভাবিকের চেয়ে ৭৭.৬ শতাংশ বেশি বৃষ্টি হয়েছে। মার্চে দেশের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ৩৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস (১২ মার্চ, সীতাকুণ্ড ও রাঙ্গামাটি) এবং দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১৩.৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস (১ মার্চ, শ্রীমঙ্গল) রেকর্ড করা হয়। মার্চ মাসে দেশের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ০.২ ডিগ্রি সেলসিয়াস এবং সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ০.১ ডিগ্রি সেলসিয়াস বেশি এবং সারাদেশে গড় তাপমাত্রা ০.১ ডিগ্রি সেলসিয়াস বেশি ছিল।



সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করুন

আরও খবর...