1. news.rifan@gmail.com : admin :
  2. smborhan.elite@gmail.com : Borhan Uddin : Borhan Uddin
  3. arroy2103777@gmail.com : Amrito Roy : Amrito Roy
  4. mdmohaiminul77@gmail.com : Md Mohaiminul : Md Mohaiminul
  5. ripon11vai@gmail.com : Ripon : Ripon
  6. holysiamsrabon@gmail.com : Siam Srabon : Siam Srabon
মঙ্গলবার, ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৫:১০ অপরাহ্ন




গাজায় ৩.৪ মিলিয়ন ডলারের সাহায্য পাঠাল তুরস্কের রেড ক্রিসেন্ট

  • সর্বশেষ পরিমার্জন: সোমবার, ৪ ডিসেম্বর, ২০২৩
  • ৩৯ বার পঠিত

তুরস্কের রেড ক্রিসেন্ট গাজায় ৩.৪ মিলিয়ন ডলারেরও বেশি মূল্যের সাহায্য পাঠিয়েছে।

ইস্তাম্বুলে একটি অনুষ্ঠানে বক্তব্য দেওয়ার সময় তুরস্কে সংস্থাটির প্রধান ফাতমা মেরিক ইলমাজ বলেন, রেড ক্রিসেন্ট প্রায় ৫০০ মিলিয়ন লিরা (১৭.৩ মিলিয়ন ডলার) অনুদান পেয়েছে এবং এর ২০ শতাংশ ইতিমধ্যেই তাৎক্ষণিক সহায়তা হিসেবে পাঠানো হয়েছে। তিনি আরও জানান, রেড ক্রিসেন্ট গাজায় ১১টি বিমান এবং দুটি জাহাজে মানবিক ত্রাণ পাঠিয়েছে।

ইসরায়েলি হামলার মধ্যে গাজায় সংস্থার ত্রাণ প্রচেষ্টার কথা বলতে গিয়ে ইলমাজ বলেন, তুর্কি রেড ক্রিসেন্ট এককভাবে খাবার ছাড়াও স্বাস্থ্য সংক্রান্ত পণ্য ও পোশাক পাঠিয়েছে।

চলমান ইসরায়েলি হামলার একটি আপডেটে, ইলমাজ বলেছেন যে তুর্কিয়ের খাদ্য সহায়তা সম্পূর্ণরূপে দ্বারা পরিচালিত হয়েছিল। এটি যে সহায়তা পাঠায় তার মধ্যে স্বাস্থ্যবিধি প্যাকেজ এবং পোশাকও রয়েছে, তিনি যোগ করেছেন।

গাজার অভ্যন্তরে স্বেচ্ছাসেবকদের যেসব চ্যালেঞ্জের মুখোমুখি হতে হয় তিনি সেগুলোর কথা তুলে ধরেন। এই সময় তিনি গাজার দখলকৃত অংশে প্রবেশ এবং প্রস্থানে আরোপ করা কঠোর বিধিনিষেধের কথা উল্লেখ করেন।

এর ‍আগে, ফিলিস্তিনের অবরুদ্ধ গাজা উপত্যকায় গণহত্যা চালানোর দায়ে ইসরায়েলকে শাস্তির আওতায় আনতে আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালতে (আইসিসি) সম্ভাব্য সবকিছু করার ঘোষণা দিয়েছেন তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়েপ এরদোয়ান। সংযুক্ত আরব আমিরাতের দুবাই থেকে দেশে ফিরে সাংবাদিকদের এ কথা বলেছেন তিনি। দুবাইয়ে জাতিসংঘের জলবায়ু পরিবর্তন সম্মেলনে (কপ-২৮) অংশ নিয়েছিলেন এরদোয়ান। খবর তাসের।

এরদোয়ান বলেন, আমরা এই গণহত্যার জন্য আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালতে ইসরায়েলকে শাস্তি আওতায় আনতে যথাসাধ্য চেষ্টা করব। এটি শুধু ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রী বেনিয়ামিন নেতানিয়াহু সরকারের জন্যই নয়, যে দেশগুলো ইসরায়েলকে নিঃশর্তভাবে সমর্থন করে চলেছে তাদের জন্যও একটি কালো অধ্যায়। ভবিষ্যতে তাদের এই নীরবতার জন্যও মূল্য দিতে হবে। বিশ্ব এই উদাসীনতার কথা ভুলে যাবে না।

এ সময় তুরস্কের আইনজীবীসহ বিশ্বের প্রায় ৩ হাজার আইনজীবী গাজায় ইসরায়েলের কর্মকাণ্ডের বিষয়ে আইসিসির কাছে আবেদন করেছেন বলেও উল্লেখ করেন তুর্কি প্রেসিডেন্ট। তিনি বলেন, প্রায় ৩ হাজার আইনজীবী আইসিসির কাছে প্রয়োজনীয় আবেদন জমা দিয়েছেন। তারা আইসিসির বিচারকাজে নজর রাখবেন। আমাদের প্রত্যাশা, গাজার কসাইরা, গণহত্যার মূলহোতারা, বিশেষ করে নেতানিয়াহু, শাস্তির মুখোমুখি হবেন।

তুর্কি প্রেসিডেন্ট বলেন, ইসরায়েলকে জবাবদিহির আওতায় আনতে প্রচেষ্টা জোরদার করবে তুরস্ক। আমরা এই গণহত্যার কথা ভুলে যাব না এবং অন্যদেরও ভুলতে দেব না। কয়েক দিন আগে বা পরে, ইসরায়েলকে অবশ্যই এর জন্য মূল্য দিতে হবে। ইসরায়েলি হামলা বন্ধ এবং গাজায় একটি স্থায়ী যুদ্ধবিরতি নিশ্চিত করতে আমরা আন্তর্জাতিক অঙ্গনে প্রচেষ্টা অব্যাহত রাখব।

এরদোয়ানের এমন মন্তব্যের কড়া প্রতিক্রিয়া দেখিয়েছেন ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রী নেতানিয়াহু। সামাজিক মাধ্যম এক্সে তিনি বলেন, এমন অনেকে আছে যারা সন্ত্রাসীদের সমর্থন করে। তাদের একজন হলেন তুরস্কের প্রেসিডেন্ট এরদোয়ান। তিনি ইসরায়েলকে সন্ত্রাসী রাষ্ট্র বলেছেন। কিন্তু হামাসের সন্ত্রাসী কার্যক্রমকে সমর্থন করেন। তাই আমরা তাদের কাছে কোনো লেকচারের জন্য যাচ্ছি না।



সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করুন

আরও খবর...